ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৪ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪২৯

জুনে ভর্তি শুরু বঙ্গবন্ধু এভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ে

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:৩০, ১২ মে ২০২২  

সংগৃহীত

সংগৃহীত

লালমনিরহাটের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ের অস্থায়ী ক্যাম্পাসে ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হবে আগামী জুনে।

গতকাল বুধবার (১১ মে) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ১৮তম বৈঠকে এ তথ্য জানিয়েছেন সহকারী বিমানবাহিনী প্রধান (পরিকল্পনা) এয়ার ভাইস মার্শাল এ এইচ এম ফজলুল হক।

তিনি বলেন, লালমনিরহাটে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের জন্য জমি অধিগ্রহণ ও উন্নয়ন প্রকল্প প্রস্তাব (ডিপিপি) তৈরির কাজ চলমান রয়েছে। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অস্থায়ী ক্যাম্পাসের জন্য বিভিন্ন স্থাপনার নির্মাণকাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে।

‘অস্থায়ী ক্যাম্পাসে আগামী জুন মাস নাগাদ ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হবে। আর আগামী তিন বছরের মধ্যে একটি ফ্যাকাল্টির স্থায়ী ক্যাম্পাস তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে। তবে প্রয়োজনীয় সব ফ্যাকাল্টির স্থায়ী স্থাপনা তৈরির চেষ্টাও চলছে।’

এর আগে, কমিটির সদস্য মো. মোতাহার হোসেন লালমনিরহাটে অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন কার্যক্রমের অগ্রগতি সম্পর্কে জানতে চান ।

তিনি বলেন, ১৫ বছর আগে লালমনিরহাটে শাহীন স্কুল প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত নিয়ে সাইনবোর্ড টানানো হয়। কিন্তু পরে সেটি বগুড়ায় স্থানান্তর করা হয। এ বিষয়ে তিনি হতাশা ব্যক্ত করেন। কেন শাহীন স্কুল লালমনিরহাটে না করে বগুড়ায় করা হলো সে বিষয়ে জানতে চান তিনি।

এর উত্তরে ফজলুল হক বলেন, শাহীন স্কুলের স্থানটিতে লালমনিরহাট ক্যান্টনমেন্ট বোর্ড কর্তৃক একটি পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ প্রতিষ্ঠা করা হয়। তাই সরকারি সিদ্ধান্তের আলোকে প্রস্তাবিত শাহীন স্কুল বগুড়ায় স্থানান্তরিত হয়। তবে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের ডিপিপিতে একটি আন্তর্জাতিক মানের স্কুল ও কলেজ অন্তর্ভুক্ত রয়েছে যা প্রথম পর্যায়ে প্রতিষ্ঠা করা হবে।

স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সদস্যদের লালমনিরহাটে নির্মাণাধীন অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থান ও স্থাপনার বাস্তব কার্যক্রম সরেজমিনে পরিদর্শনের অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, আমি মনে করি এ পরিদর্শনের ফলে বিশ্ববিদ্যালয়টির স্থাপন কাজ আরও ত্বরান্বিত হবে।

বুধবারের বৈঠকে বাংলাদেশ নৌবাহিনীকে আধুনিকায়নের লক্ষ্যে গৃহীত পদক্ষেপসমূহের বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। এ সময় এসব পদক্ষেপের সুষ্ঠু বাস্তবায়নের লক্ষ্যে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য কমিটি থেকে সুপারিশ করা হয়।

বৈঠকে সভাপতিত্বে করেন সংসদীয় কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ সুবিদ আলী ভূঁইয়া। এতে অংশ নেন কমিটির সদস্য আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, শেখ হেলাল উদ্দীন, মুহাম্মদ ফারুক খান, মো. ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ, মো. মোতাহার হোসেন, নাজমুল হাসান, মো. নাসির উদ্দিন ও মো. মহিববুর রহমান।

এছাড়াও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়, সেনাবাহিনী, বিমানবাহিনী ও নৌবাহিনীর উর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও বাংলাদেশ সমরাস্ত্র কারখানার কমান্ড্যান্টরা।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়